Wednesday, January 26, 2022

এ সপ্তাহের প্রিয় তারকা – আইয়ুব বাচ্চু…

আমাদের দেশের সঙ্গীত তারকাদের অনেক অনেক মজার সব তথ্য বা তাদের পছন্দ, অপছন্দ নিয়ে প্রতি সপ্তাহে একজন তারকাকে তুলে ধরা হয় এই বিভাগে। আশাকরি আপনাদের পছন্দের প্রিয় তারকার এই সব তথ্য নিশ্চয়ই আপনাকে আন্দোলিত করবে বলে আমাদের বিশ্বাস। আসুন জেনে নেই এ সপ্তাহের প্রিয় তারকার সম্পর্কে –

নাম : আইয়ুব বাচ্চু।
ডাক নাম : রবিন।
ভক্তরা যে নামে ডাকে : এবি।
পিতার নাম : ইশহাক চোধুরী।
মাতা : নুরজাহান বেগম।
ভাই/বোন : তিন ভাই-বোন।
পড়াশুনা : স্কুল – সরকারি মুসলিম উচ্চ বিদ্যালয়ে এস এস সি পরীক্ষা দিয়ে পাশ করেন। চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়-এর অধীনে চট্টগ্রাম কলেজ থেকে স্নাতক এবং স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করেন।
পেশা : সঙ্গীত শিল্পী ও মিউজিশিয়ান।

প্রেম : ফেরদৌস আইয়ুব চন্দনা।
বিয়ে : ৩১ জানুয়ারী ১৯৯১।
স্ত্রী ও ছেলেমেয়ে : ফেরদৌস আইয়ুব চন্দনা, ছেলে আহনাফ তাজওযার আইয়ুব এবং মেয়ে ফাইরুজ সাফরা আইয়ুব।
বাবার উপহার : ১৯৭৩ সালে তার বাবা তাকে তার ১১তম জন্মদিনে একটি গীটার উপহার দেন।
গীটার শেখাতো : জেকব ডায়াজ।
প্রথম ইলেকট্রিক গীটার : একটি টিস্কো গীটার।
সঙ্গীতে আসার পেছনে কার অনুপ্রেরণা দোলা দেয় : তার কৈশর জীবনের শুরুর দিকে সে বিভিন্ন ব্রিটিশ এবং আমেরিকান রক ব্যান্ডের গান শোনা শুরু করেন।

প্রথম ব্যান্ড – চট্টগ্রামে ১৯৭৬ সালে কলেজ জীবনে “গোল্ডেন বয়েজে”। পরে নাম বদলে করা হয় “আগলি বয়েজ”।
২য় ব্যান্ড – ১৯৭৭ সালে তিনি “ফিলিংস” (বর্তমানে “নগর বাউল” নামে পরিচিত) এ যোগদান করেন এবং ব্যান্ডটির সাথে ১৯৮০ সাল পর্যন্ত কাজ করেন। ঐ বছরেই তিনি রক ব্যান্ড সোলস-এর প্রধান গীটারবাদক হিসেবে কাজ করেন। সোলসের সঙ্গে তিনি ১৯৯০ সাল পর্যন্ত ছিলেন।
সোলস এর সাথে এ্যালবাম : সুপার সোলস (১৯৮২), কলেজের করিডোরে (১৯৮৫), মানুষ মাটির কাছাকাছি (১৯৮৭) এবং ইস্ট অ্যান্ড ওয়েস্ট (১৯৮৮) চারটি এ্যালবামে সাথে জড়িত ছিলেন।
নিজ ব্যান্ড – ১৯৯১ সালের ৫ এপ্রিল ব্যান্ড লিটল রিভার ব্যান্ড গঠন, যা পরবর্তীকালে লাভ রান্স ব্লাইন্ড নামে বা সংক্ষেপে এল আর বি নামে জনপ্রিয় হয়ে উঠে।
সেরা গীটারবাদরক : দ্যা টপ টেনস তাকে বাংলাদেশের “শ্রেষ্ঠ ১০ জন গীটারবাদক” এর তালিকায় ২য় স্হানে দিয়েছেন।

গান করি : মূলত রক ঘরানার কন্ঠের অধিকারী হলেও আধুনিক গান, শাস্ত্রীয় সঙ্গীত এবং লোকগীতি ঘরানায়ও তিনি কাজ করেছেন।
বাজাই : গীটার সাথে অন্যান্য বাদ্যযন্ত্রও বাজাতে পারতেন।
জন্ম তারিখ : ১৬ আগষ্ট ১৯৬২।
মৃত্যু তারিখ : ১৮ অক্টোবর ২০১৮।
জন্ম স্হান : চট্টগ্রাম জেলার পটিয়া উপজেলার খরনা ইউনিয়নে।

প্রথম এ্যালবাম : ১৯৮৬ সালে রক্তগোলাপ।
নিজ ব্যান্ড বা নিজের প্রিয় গান : চলো বদলে যাই।
কোন পুরষ্কার : এল আর বি’র সাথে ছয়টি মেরিল প্রথম আলো পুরস্কার এবং একটি সিটিসেল-চ্যানেল আই মিউজিক অ্যাওয়ার্ডস। ২০০৪ সালে বাচসাস পুরস্কার সেরা পুরুষ ভোকাল বিভাগে। ২০১৭ সালে, টেলে সিনে আজীবন সম্মাননা পুরস্কার জিতেছিলেন।
প্রিয় মানুষ : মা।
প্রিয় লেখক : হুমায়ুন আহমেদ।
পছন্দের খাওয়া : ভাত, মাছ, বিভিন্ন প্রকারের ডাল ও ইলিশ মাছ ভুনা।
প্রিয় পোশাক : কালো – টি-শার্ট, শার্ট ও জিন্স।
প্রিয় বই : নিমাই ভট্টাচার্যের মেমসাহেব।
প্রিয় শিল্পী : (বিদেশে) – জিমি হেনড্রিক্স, ডেভিড কাভারডিল।
প্রিয় ব্যান্ড : (বিদেশে) – লেড জেপলিন, ডিপ পার্পল, কুইন, এক্সপেরিয়েন্স।
প্রিয় রং : কালো।
প্রিয় সময় : রাত।
প্রিয় ঋতু : শীত।
প্রিয় বেড়ানোর জায়গা : কক্সবাজার।
যেসব দেশে কনসার্ট করেছেন এবং ঘুড়েছেন : আমেরিকা, যুক্তরাজ্য, ইউরোপ, এশিয়া সহ অনেক দেশে।

একক এ্যালবাম – রক্তগোলাপ (১৯৮৬), ময়না (১৯৮৮), কষ্ট (১৯৯৫), সময় (১৯৯৮), একা (১৯৯৯), প্রেম তুমি কি! (২০০২), দুটি মন (২০০২), কাফেলা (২০০২), প্রেম প্রেমের মতো (২০০৩), পথের গান (২০০৪), ভাটির টানে মাটির গানে (২০০৬), জীবন (২০০৬), রিমঝিম বৃষ্টি (২০০৮), বলিনি কখনো (২০০৯), জীবনের গল্প (২০১৫)।

ব্যান্ড এ্যালবাম – এলআরবি (১৯৯২), সুখ (১৯৯৩), তবুও (১৯৯৪), ঘুমন্ত শহরে (১৯৯৫), ফেরারি মন (১৯৯৬), স্বপ্ন (১৯৯৬), আমাদের বিস্ময় (১৯৯৮), মন চাইলে মন পাবে (২০০০), অচেনা জীবন (২০০৩), মনে আছে নাকি নেই (২০০৫), স্পর্শ (২০০৮), যুদ্ধ (২০১২)।

প্রথম বাদ্যযন্ত্র এ্যালবাম : ২০০৭ সালে তিনি দেশের প্রথম বাদ্যযন্ত্রগত এ্যালবাম সাউন্ড অফ সাইলেন্স প্রকাশ করেন।

নেপথ্য কণ্ঠশিল্পী – লাল বাদশা (১৯৯৯), আম্মাজান (১৯৯৯), গুন্ডা নাম্বার ওয়ান (২০০০), ব্যাচেলর (২০০৪), রং নাম্বার (২০০৪), চাঁদের মত বউ (২০০৯), চোরাবালি (২০১২), টেলিভিশন (২০১৩), এক কাপ চা (২০১৪)।

স্বীকৃতি : আইয়ুব বাচ্চুকে শ্রদ্ধা জানানোর জন্য চট্টগ্রামের প্রবর্তক মোড়ে ১৮ ফুট উচ্চতার একটি গিটারের ভাস্কর্য স্থাপন করা হয়। রূপালী গিটার আইয়ুব বাচ্চুর একটি জনপ্রিয় গানের শিরোনাম অনুসারে এই ভাস্কর্যের নাম রাখা হয় রূপালী গিটার। – (সংগ্রহ)

ছবি – বায়েজিদ বিন ওয়াহিদ

Related Articles

Leave a reply

Please enter your comment!
Please enter your name here

Stay Connected

18,780FansLike
700SubscribersSubscribe
- Advertisement -

Latest Articles