পিঙ্কের সাথে আপোষ করেছে ‘করোনা’ দিলেন ৮ কোটি টাকা…

– মোশারফ হোসেন মুন্না।

করোনা ভাইরাস জাতিকে ধরেছে আঠার মতো। এত আহাজারি, রোদন থামাতে পারছে না করোনাকে। করোনা কারো কারো কাছে যেনো জীবন্ত এক পরাশক্তি হয়ে দাড়িয়েছে। আবার কারো কারো সাথে হচ্ছে করোনার আপোষ। কারো জীবন কেড়ে নিয়ে শেষ সমাধির অধিকার থেকেও করছে বঞ্চিত। আবার কাউকে করে দিয়েছে মাফ। করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে টানা ১৫ দিন আইসোলেশনে থেকে মৃত্যুর কাছ থেকে ফিরে এসেছেন মার্কিন পপ গায়িকা পিঙ্ক। নতুন জীবন ফিরে পেয়েছেন তিনি। জীবন যেখানে থমকে গিয়েছিলো। চলছিলো না আয়ু রেখার চাকা। হয়তো মন ভাবছিলো আর হবে না বেচেঁ থাকা। কিন্তু ভাগ্যে যেনো প্রসন্ন হয়েছে, দিয়েছে করুণার ছাঁয়া। তাই সুস্থ্য হয়ে সাড়ে ৮ কোটি টাকা দান করবেন বলে কথা দিয়েছেন এই গায়িকা। শুধু পিঙ্কের নয়, তার তিন বছরের ছেলের মাঝেও দেখা দিয়েছিলো করোনার নানা লক্ষণ। এখন অনেকটা ঝুঁকি মুক্ত তারা। পিঙ্ক জনিয়েছেন তার দানের সাড়ে ৮ কোটি টাকার অর্ধেক দেওয়া হচ্ছে যুক্তরাস্ট্রের ফিলাডেলফিয়ার টেম্পল ইউনিভার্সিটি হাসপাতালের জরুরী তহবিলে ও বাকি অর্ধেক দেওয়া হচ্ছে লস অ্যাঞ্জেলেসের মেয়রের জরুরী সংকট তহবিলে। সামাজিক যোগাযোগ পপ গায়িকা পিঙ্ক লিখেছেন, দুই সপ্তাহ আগে আমার তিন বছরের ছেলে জেমসন ও আমার মধ্যে কভিট-১৯ এর লক্ষণ দেখা দেয়। সৌভাগ্যক্রমে প্রাথমিক পর্যায়েই আমাদের চিকিৎসক পরীক্ষা-নিরীক্ষা করতে পেরেছিলেন।

এরপর আমরা একটি বাড়িতে চিকিৎসকদের নির্দেশনা অনুযায়ি দিন কাটাতে শুরু করি। চিকিৎসক জানিয়েছেন এখন আমরা করোনা মুক্ত। মানুষজনের জানা উচিত এটা তরুণ-বৃদ্ধ, স্বাস্থ্যকর-অস্বাস্থ্যকর, ধনী-দরিদ্রসহ সবাইকে আক্রমণ করতে পারে। আমাদের শিশু, পরিবার, বন্ধু-সবার জন্য করোনা ভাইরাসের পরীক্ষা বিনামূল্য করার সুযোগ করে দিতে হবে। ভালো থাকুক বিশ্বের সকলে। চলে যাক ঘাতক ব্যাধি। শান্তি আসুক ফিরে আবার সারা পৃথিবীর বুকে। সেই কামনায় সঙ্গীতাঙ্গন।

Related Articles

Leave a reply

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisement -

Latest Articles