Wednesday, January 26, 2022

বিশাল কনসার্টে জন্মবার্ষিকী…

মোশারফ হোসেন মুন্না।

১৪ই ফেব্রুয়ারি বিশ্ব ভালোবাসা দিবস। আর সেই ভালোবাসা একেকজন একেক ভাবে প্রকাশ করে। শুধু একটা মেয়ে আর একটা ছেলের মাঝেই ভালোবাসা বিরাজ করেনা। ভালোবাসা বৈচিত্র্যময়। পৃথিবীর সবার প্রতি তা দেখানো যায়। আর দেখানোটাই স্বাভাবিক। কিন্তু তা যদি হয় গানের জন্য, তাহলে ভালোবাসাটা একটু অন্যরকম। গানের প্রতি ভালো লাগা আছে পৃথিবীর সবার কিন্তু ভালোবাসা সবার থাকেনা। সবাই কম বেশি গান শুনে ভালো লাগা থেকে। কিন্তু ভালোবেসে গান করা ও শোনা এটা সবার ক্ষেত্রে নয়। কিন্তু এমন কিছু লোক পৃথিবীতে আছে যাদের জন্মই গানের জন্য। যাদের জন্ম গানের ভেতরে। যাদের ভালোবাসা গানের জন্য। তাদের মধ্যে একটা পরিবার হলো বারীন মজুমদারের পরিবার। যার পরিবারের প্রতিটি সদস্য গানের মধ্যে ডুবে আছে। যাদের প্রত্যেকের জন্ম সার্থক গানকে ভালোবেসে। তাদের একজন বারীন মজুমদারের যোগ্য সন্তান পার্থ মজুমদার। সঙ্গীত জীবনটাই তার জীবন। সঙ্গীতকে তিনি জীবনের একটি অবিচ্ছেদ অংশ ভাবেন। ১৪ই ফেব্রুয়ারি ভালোবাসা দিবসের ভালোবাসাকে আরো প্রাণবন্ত করতে পার্থ মজুমদার এস আই টুটুল দুই জনের উদ্যোগে গঠন করা হয় ভালোবাসার এক নতুন ব্যান্ড ‘ফেস টু ফেস’। কিন্তু ২০০৮ সালে প্রয়াত বরেণ্য কথাসাহিত্যিক হুমায়ূন আহমেদের পরামর্শে ব্যান্ডের নাম পরিবর্তন করে রাখা হয় ‘ধ্রুবতারা’। গত বছর ব্যান্ডটির ১৫তম জন্মবার্ষিকী পালন করা হয় রাজধানীর উত্তরায়। তবে সেটা ছিলো পারিবারিক আড্ডার মতো। কিন্তু ২০২০ সালের ১৬তম জন্মদিন পালনটা একটু ব্যাতিক্রম ভাবে পালন করা হয়। আর এই নিয়ে সঙ্গীতাঙ্গন এর সাথে কথা হয় ব্যান্ডর প্রধান পার্থ মজুমদারের সাথে। পার্থ মজুমদার বলেন এটা আমাদের ১৬তম জন্মবার্ষিকী। আমরা ২০০৫ সালের ১৪ই ফেব্রুয়ারিতে ফেস টু ফেস নামে এর আত্নপ্রকাশ করি। তবে ২০০৮ সালে নামটি পরিবর্তন করা হয়। তবে এর পিছনে একটা কারণ ছিলো। আর তা হলো শ্রদ্ধেয় হুমায়ুন স্যার। তিনি একদিন বললেন যে এই ব্যান্ডের নামটা ধ্রুবতারা রাখার জন্য। আজ তিনি নেই তবে তার দেওয়া ধ্রুবতারার নামটি রয়ে গেছে। শ্রদ্ধা নিবেদন করি স্যারের প্রতি। আর প্রার্থনা করি হুমায়ুন স্যার ঐ পাড়ে ভালো থাকুক। আর একটা নাম না বললেই নয়, তিনি আমাদের ব্যান্ডগুরু আইয়ুব বাচ্চু। তিনিও আমাদের এই ব্যান্ডকে খুব ভালোবাসতেন। আমরা তার প্রতি শ্রদ্ধা জানাই। দু’জনই আজ কবরের বাসিন্ধা। আমরা দু’জনকেই হারিয়েছি। তবে চিরতরে হারায়নি। আমরা তাদের মনে রাখবো তাদের গানের মাধ্যমে তাদের কাজের মাধ্যমে। মানুষ মানুষের প্রতি কতটা শ্রদ্ধা দেখাতে পারে। মানুষ মানুষকে কতটা সস্মান জানাতে পারে তার নজির পার্থ মজুমদার। সঙ্গীতের মানুষ বলে নয় শুধু, ব্যাক্তিগত জীবনেও নিঃসন্দেহে একজন সরল মনের মানুষ পার্থ মজুমদার। তিনি বলেন, ১৬তম জন্মদিন পালন করি ঢাকার সুবর্ণপার্কে। দেশের অন্যতম ব্যাংকের উর্ধতন কর্মকর্তাদের অংশগ্রহণের মাধ্যেমে একটি কনসার্টের আয়োজন করা হয়। কেক কাটা হয়। অনেক আনন্দের মাধ্যেমে আমরা আমাদের ১৬তম জন্মদিন পালন করি। ধ্রুবতারা ব্যান্ডের একটি স্মরণীয় দিন ছিলো ২০২০ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারি। প্রসঙ্গত এখন পর্যন্ত বাজারে ‘ধ্রুবতারা’র দুটি এ্যালবাম প্রকাশ হয়েছে। একটি ‘ধ্রুবতারা’ ও অন্যটি ‘দুঃখপোকা’। ধ্রুবতারা’র লাইনআপ হচ্ছে বেজ গিটার ও ব্যান্ড লিডার পার্থ মজুমদার, লিড গিটারে সেলিমুজ্জামান শেলী, ড্রামসে মুজিব উদ্দৌলা মুজু, উড উইন্ড ইনস্ট্রুম্যান্টে সাঈদ হাসান বাবু, কী বোর্ডে নাদিম এবং ভোকাল-সেকেন্ড লিড গিটারে এসআই টুটুল। সবাই ভালো থাকুন, ভালো রাখুন আপনজনকে। সঙ্গীতকে ভালোবেসে সঙ্গগীতাঙ্গন এর সাথে থাকুন। শুভ কামনায়।

Related Articles

1 Comment

Leave a reply

Please enter your comment!
Please enter your name here

Stay Connected

18,780FansLike
700SubscribersSubscribe
- Advertisement -

Latest Articles